ছাত্রলীগ নেতার কোপে জখম পুলিশের পরিদর্শক-উপপরিদর্শক

181

 

হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ পৌর এলাকায় তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহসভাপতি শাহ সোহান আহমেদ মুসাকে গ্রেপ্তারের সময় তার দা’য়ের কোপে জখম হয়েছেন থানার পরিদর্শক (তদন্ত) উত্তম কুমার দাস ও উপপরিদর্শক (এসআই) ফখরুজ্জামান।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে নবীগঞ্জ উপজেলায় এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত অবস্থায় নবীগঞ্জ থানার পরিদর্শক উত্তম কুমারকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এসআই ফখরুজ্জামানকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সন্ধ্যার পর নবীগঞ্জ শহরের সালামতপুর এলাকায় ব্র্যাক অফিসের কাছে তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী ও একাধিক মামলার পলাতক আসামী মুসার দোকানে অভিযান চালায় পুলিশ। গ্রেপ্তারকালে মুসা দোকানের ভেতর থেকে একটি রাম-দা নিয়ে পুলিশের উপর এলোপাতাড়ি কোপাতে শুরু করেন।

দা’য়ের আঘাতে পুলিশ পরিদর্শক উত্তম কুমার ও এসআই ফখরুজ্জামান গুরুতর আহত হন। এ সময় পালিয়ে যান মুসা। পরে স্থানীয় লোকজন পুলিশের এই দুই কর্মকর্তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। অবস্থা গুরুতর হওয়ায় সেখানকার চিকিৎসকরা উত্তমকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল হাসপাতালে পাঠান।

নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইকবাল হোসেন জানান, মুসা একজন তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী এবং ইয়াবা ব্যবসায়ী। পরোয়ানা থাকায় তাকে গ্রেপ্তার করতে পুলিশ তার দোকানে অভিযান চালায়। এ সময় তিনি ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে দুই কর্মকর্তাকে আহত করেন। তারা হাসপাতালে ভর্তি আছেন। মুসাকে ধরতে অভিযান অব্যাহত আছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here